সীতাকুণ্ডে ফ্রিজ ভাঙ্গা গুজব

২৪ ঘন্টা ডট নিউজ। সীতাকুণ্ড প্রতিনিধি : সারাদেশে করোনা ভাইরাস নিয়ে একদিকে সবার মাঝে বিরাজ করছে আতঙ্ক আর অন্য দিকে একের পর এক সৃষ্টি হচ্ছে গুজব।

বিজ্ঞাপন

এই গুজবে সাধারণ মানুষের মধ্যে বিভ্রান্তি সৃষ্টি হয়েছে। গুজবে পিছিয়ে নেই চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলাও। করোনা আতঙ্কের মধ্যেও যে যেভাবে পারছে গুজব ছড়িয়ে যাচ্ছে। তেমনি একটি গুজব হচ্ছে ফ্রিজ ভাঙা।

এ গুজবে বলা হচ্ছে করোনার কারণে ফ্রিজে কাঁচা মাছ, মাংস রাখলে বাড়ি গিয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ফ্রিজ ভেঙ্গে দিচ্ছে। আজ বুধবার সকাল থেকেই এ গুজব ছড়িয়ে পড়ে।

স্থানীয়রা জানান, সকাল থেকেই গুজব রটে আইনশৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা বাহিনীর লোকজন বাড়ি বাড়ি গিয়ে ফ্রিজ ভেঙ্গে ফেলছে। তারপর ফ্রিজে রাখা জিনিসপত্র নিয়ে যাচ্ছে।

জানা গেছে, উপজেলার কুমিরা এলাকায় বিদেশ ফেরত এক প্রবাসীর বাড়িতে গিয়ে ইউনিয়ন পরিষদের নুরুজ্জামান নামের এক চৌকিদার বলেছে, ঘরের ফ্রিজ বন্ধ রাখতে, এর কারণ হিসেবে বলেছে যে, ফ্রিজের ঠান্ডা খাবার খেলে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হবে। এই কথাটি দ্রুত সবার মাঝে ছড়িয়ে পড়ে এবং যে যেভাবে পারছে গুজব ছড়িয়ে দিচ্ছে।

এ ব্যাপারে নুরুজ্জামানের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি সবার কাছে শুনেই কথাটা বলেছি। গুজব রটানোর পর থেকে অনেকে নিজেদের আত্মীয়, পরিচিতজনদেরও মোবাইল ফোনে এ খবর জানিয়ে দেন। ফলে বাড়ির গৃহিণীদের মধ্যেও আতঙ্ক তৈরি হয়।

এই গুজবের ব্যাপারে জানতে চাইলে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) বলেন, এটি একটি সম্পুর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট, গুজব। এক শ্রেণীর কিছু মানুষ এমন গুজব ছড়াচ্ছে। যারাই এমন গুজব ছড়াচ্ছে তাদেরকে চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনা হবে। সবাই মিথ্যা গুজব থেকে বিরত থাকুন, কেউ গুজবে বিশ্বাস করবেন না।

২৪ ঘন্টা/কামরুল ইসলাম দুলু/ আর এসপি