বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাসের টিকা নেবেন রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের সিনিয়র স্টাফ নার্স রুনু বেরুনিকা কস্তা।

বিজ্ঞাপন

আগামীকাল (২৭ জানুয়ারি) বিকেল সাড়ে ৩টায় ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে টিকা প্রয়োগ কার্যক্রম উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর পর ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউটে উৎপাদিত অক্সফোর্ড–অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার প্রথম ডোজ নেবেন রুনু বেরুনিকা কস্তা। তার সঙ্গে একই হাসপাতালের দুজন সিনিয়র স্টাফ নার্স মুন্নী খাতুন ও রিনা সরকারও টিকা নেবেন।

চিকিৎসক হিসেবে প্রথম টিকা নেবেন মেডিসিন কনসালট‌্যান্ট ডা. আহমেদ লুৎফর মবিন। করোনার টিকা নেবেন আরও দুই চিকিৎসক। তবে তাদের নাম জানা যায়নি।

আজ স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক জানান, বুধবার বিকাল সাড়ে ৩টায় রাজধানীর কুর্মিটোলা হাসপাতালে করোনার টিকাদান কর্মসূচি উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। কাল ২৫ জনকে করোনা টিকা দেওয়া হবে। এরপর বৃহস্পতিবার ঢাকার পাঁচটি হাসপাতালের ৪০০ থেকে ৫০০ জনকে টিকা দেওয়া হবে।

সারাদেশে টিকাদান কার্যক্রম শুরু হবে আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি।

টিকা নিবন্ধনের বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী টিকা উদ্ধোধনের পর থেকেই টিকার নিবন্ধন শুরু হয়ে যাবে। এ ছাড়া স্বাস্থ্যকেন্দ্রে গিয়েও টিকার নিবন্ধন করা যাবে।